জেলায় তীব্র গরমে অতিষ্ঠ জনজীবন

46

Chapainawabganj Heat News-09-04-16 (Small)

তীব্র তাপপ্রবাহে পুড়ছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ, আর এই তাপপ্রবাহকে অনেকেই অবহিত করছেন চৈত্রের ‘অগ্নিরুপ’। চাঁপাইনবাবগঞ্জে গত দুই দিন থেকে বয়ে চলা এই তাপ প্রবাহে সাধারণ মানুষ অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছেন। নিতান্ত বাধ্য না হলে কেউ ঘর থেকে বের হচ্ছেন না। যারা জীবিকার প্রয়োজনে বের হচ্ছেন, তারাও একটু প্রশান্তির জন্য গাছের ছায়া, কিংবা বিভিন্ন ধরনের পানীয় পান করছেন।
শনিবার বেলা ১১ টার দিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরের ক্লাব সুপার মার্কেটে গিয়ে দেয়া ক্রেতাদের উপস্থিতি একদমই নেয়, বিক্রিতা বলছেন অনেক বেশি গরম পড়ায় ক্রেতারা সাধারণ সন্ধ্যার পরই প্রয়োজনে আসছেন। আমেনা বস্ত্রালয়ের মালিক মুজিবুর রহমান জানান, তীব্র গরমের কারণে ক্রেতারা দোকানগুলোতে আসছে না। সন্ধ্যার পর কিছু মানুষ কেনাকাটা করতে আসছে।
অন্যদিকে এই গরমে বিক্রি বেড়েছে ডাবের, সেই সাথে পথের ধারে বেলের শরবতের চাহিদাও বেড়েছে বলে জানিয়েছেন এই সব ব্যবসার সাথে জড়িতরা। চাঁপাইনবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের সামনে রাস্তায় সুজন আলী নামে এক ডাম বিক্রিতা জানান, খরা পড়ায় ডাব বিক্রি হচ্ছে ভালো। তিনি বলেন ডাব ২৫-৪০ টাকার মধ্যে বিক্রি করছেন।
শুধু ডাব বিক্রিতা সুজন আলী নয়, আইসক্রিম বিক্রেতা সেরাজুলও জানান, তারও ব্যবসা ভালো হচ্ছে। কয়েক ঘন্টায় প্রায় শতাধিক আইসক্রিম বিক্রি করেছেন বলে জানান তিনি। শহরের মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায়, ভ্যাবসা গরমে একটু খানি প্রশান্তি পেতে শিক্ষার্থীরা আইসক্রিম খাচ্ছে। এই সময় মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেনীর শিক্ষার্থী ইউনুস সুকরানা জানান, প্রচন্ড গরম তাই আইসক্রিম খাচ্ছি, এতে কিছু সময়ের জন্য হলেও একটি স্বস্তি লাগে, কিছুটা ভালো মনে হয়।
কৃষি অফিস সুত্রে জানা গেছে, গত ৫ এপ্রিল বৃষ্টির পর হঠাৎ করে জেলার আবহাওয়া পরিবর্তন আসে এবং তাপমাত্রা বাড়তে থাকে। শনিবার সর্বোচ্চ ৩৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস।

 

SHARE